,
শিরোনাম
জগন্নাথপুরে প্রবাসী সংগঠনের উদ্যোগে বন্যা দুর্গতদের মধ্যে নগদ অর্থ বিতরণ ক্ষমতায় গেলে কুইক রেন্টাল ও বিদ্যুৎ খাতে আইন বাতিল করবে জগন্নাথপুরের কলকলিয়ায় স্পেন প্রবাসী “KUDA” এর উপদেষ্টা আব্দুল গনি এনাম সংবর্ধিত “KUDA” এর যুগ্ম সম্পাদক ছোট মিয়া’র নামাজে জানাজা আজ জগন্নাথপুরে বঙ্গমাতার জন্মবার্ষিকী পালন ও সেলাই মেশিন বিতরণ বিশ্ববাজারের সাথে সামঞ্জস্য রেখে বিপিসির আমদানি কার্যক্রম স্বাভাবিক রাখতে জ্বালানী তেলের মূল্য সমন্বয় হাজি রওনকুল ইসলাম ও মাওলানা মুন্সিফ আলী রহ.চেতনাকে সামনে রেখে খেলাফতের কাজ কে তরান্বিত করতে হবে : মাওলানা রেজাউল করিম জালালী জগন্নাথপুরের সামাজিক সংগঠন “KUDA” এর উদ‌্যোগে ফ্রি চিকিৎসা সেবা ও ঔষধ বিতরন জগন্নাথপুরের কলকলিয়ার খোকন হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবীতে মানববন্ধন দেশে মুসলিম জনগোষ্ঠী ৯১.০৪ শতাংশ, হিন্দু ৭.৯৫ শতাংশ

‘ডান্স মহামারি’-র কথা শুনেছেন কখনও, আক্রান্তরা এত বেশি নাচে যে শেষে তাদের মৃত্যু হয়

দৃক নিউজ২৪, ডেস্ক:- গোটা বিশ্ব এখন করোনাভাইরাস মহামারির বিরুদ্ধে লড়তে লড়তে নাজেহাল। প্রতিদিন বহু মানুষের প্রাণ যাচ্ছে কোভিডের কারণে। তবে মহামারি মানব সভ্যতায় এই প্রথম নয়। এরও আগে বহু মহামারির মোকাবিলা করতে হয়েছে বিশ্ববাসীকে। তারমধ্যেই একটি ভারী অদ্ভূত মহামারি ছিল ‘ডান্স এপিডেমিক’ বা নৃত্য মহামারি। অবিশ্বাস্য হলে সত্যি, হল যে, এই মহামারী রোগে আক্রান্ত মানুষ পাগলের মতো নাচতে শুরু করতেবন। আর নাচতে নাচতেই প্রাণ যেত তাদের।

প্রায় ৫০০ বছর আগে এই মহামারী ছড়িয়ে পড়েছিল ফ্রান্স-এ। রোমান সাম্রাজ্যের অধীনে থাকা ফরাসি শহর স্টারসবুর্গে, নয় নয় করে কয়েক হাজার মানুষ এই রোগে আক্রান্ত হয়েছিলেন। তবে আক্রান্তের সংখ্যা নিয়ে বিতর্ক রয়েছে। রোগীরা যতক্ষণ না তাদের প্রাণ চলে যেত, ততক্ষণ নেচেই যেতেন।

১৫১৮ সালে এক ফরাসি মহিলা প্রথম এই রোগে আক্রান্ত হয়েছিলেন। হঠাতই মাঝরাস্তায় ফ্রো ট্রফে নামে এক মহিলা নাচতে শুরু করেছিলেন। পথচলতি মানুষ, প্রথমে বিষয়টা স্বাভাবিকভাবেই নিলেও অল্প সময়ের মধ্যেই বুঝতে পেরেছিলেন ওই মহিলার নাচের মধ্যে অস্বাভাবিকতা রয়েছে।

১৫১৮ সালে এক ফরাসি মহিলা প্রথম এই রোগে আক্রান্ত হয়েছিলেন। হঠাতই মাঝরাস্তায় ফ্রো ট্রফে নামে এক মহিলা নাচতে শুরু করেছিলেন। পথচলতি মানুষ, প্রথমে বিষয়টা স্বাভাবিকভাবেই নিলেও অল্প সময়ের মধ্যেই বুঝতে পেরেছিলেন ওই মহিলার নাচের মধ্যে অস্বাভাবিকতা রয়েছে।

টানা ৬ দিন ধরে চলেছিল সেই নাচ তারপর টানা ৬দিন ধরে নেচেছিলেন ফ্রে। নাচতে গিয়ে রক্তাক্ত হয়েছিল তার পা। জুতোর মধ্য দিয়ে উপচে এসেছিল রক্ত। তবুও নাচ তিনি থামাননি। রাতে অবশ্য তিনি ঘুমাতেন। কিন্তু সকাল হলেই ফের নাচতে শুরু করতেন। টানা ৬ দিন ধরে চলেছিল সেই নাচ

তারপর টানা ৬দিন ধরে নেচেছিলেন ফ্রে। নাচতে গিয়ে রক্তাক্ত হয়েছিল তার পা। জুতোর মধ্য দিয়ে উপচে এসেছিল রক্ত। তবুও নাচ তিনি থামাননি। রাতে অবশ্য তিনি ঘুমাতেন। কিন্তু সকাল হলেই ফের নাচতে শুরু করতেন”

ক্রমে বাড়তে থাকে আক্রান্তের সংখ্যা অদ্ভূতভাবে তার পর থেকে ধীরে ধীরে ওই শহরে একই রোগে আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমে বাড়তে থাকে। পরের একমাসের মধ্য়েই ৪০০-রও বেশি মানুষের নাচের রোগ ধরা পড়েছিল। বেশিরভাগই ছিল অল্পবয়সী মহিলা। মহামারির কারণে প্রতিদিন গড়ে ১৫ জনের মৃত্যু হতে শুরু করে। কারোর ক্ষেত্রে মৃত্যুর কারণ হার্ট অ্যাটাক, কেউ ক্লান্তিতে কেউ বা ব্রেইন স্ট্রোকের কারণে মারা গিয়েছিলেন।

ক্রমে বাড়তে থাকে আক্রান্তের সংখ্যা অদ্ভূতভাবে তার পর থেকে ধীরে ধীরে ওই শহরে একই রোগে আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমে বাড়তে থাকে। পরের একমাসের মধ্য়েই ৪০০-রও বেশি মানুষের নাচের রোগ ধরা পড়েছিল। বেশিরভাগই ছিল অল্পবয়সী মহিলা। মহামারির কারণে প্রতিদিন গড়ে ১৫ জনের মৃত্যু হতে শুরু করে। কারোর ক্ষেত্রে মৃত্যুর কারণ হার্ট অ্যাটাক, কেউ ক্লান্তিতে কেউ বা ব্রেইন স্ট্রোকের কারণে মারা গিয়েছিলেন।

এই মহামারি রোগের কারণ এখনও অবধি স্পষ্ট নয়। কেন তারা ওই ভাবে নাচতে শুরু করছিলেন তার উত্তর আধুনিক চিকিত্সা বিজ্ঞানও নিশ্চিতভাবে দিতে পারেনি। চিকিৎসা বিজ্ঞানীদের একাংশের অনুমান, সম্ভবত এক ধরণের ছত্রাক থেকে কোনও খাদ্যে বিষক্রিয়া ঘটেছিল। যার থেকে মাদকের মতো প্রভাব তৈরি হয়েছিল। আবার আরেক অংশ মনে করেন, এটা ছিল এক ধরণের গণ হিস্টিরিয়া, বিজ্ঞানের পরিভাষায় মাস সাইকোজেনিক ডিজিজ। মানসিক চাপ থেকেই এই ধরণের গণ হিস্টিরিয়া তৈরি হয়েছিল। কিন্তু নিশ্চিত উত্তর কারোর জানা নেই।

এই মহামারি রোগের কারণ এখনও অবধি স্পষ্ট নয়। কেন তারা ওই ভাবে নাচতে শুরু করছিলেন তার উত্তর আধুনিক চিকিত্সা বিজ্ঞানও নিশ্চিতভাবে দিতে পারেনি। চিকিৎসা বিজ্ঞানীদের একাংশের অনুমান, সম্ভবত এক ধরণের ছত্রাক থেকে কোনও খাদ্যে বিষক্রিয়া ঘটেছিল। যার থেকে মাদকের মতো প্রভাব তৈরি হয়েছিল। আবার আরেক অংশ মনে করেন, এটা ছিল এক ধরণের গণ হিস্টিরিয়া, বিজ্ঞানের পরিভাষায় মাস সাইকোজেনিক ডিজিজ। মানসিক চাপ থেকেই এই ধরণের গণ হিস্টিরিয়া তৈরি হয়েছিল। কিন্তু নিশ্চিত উত্তর কারোর জানা নেই।

     More News Of This Category

ফেসবুকে আমরা

 

 

Prayer Time Table

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ভোর ৪:১৭
  • দুপুর ১২:০৬
  • বিকাল ৪:৩৮
  • সন্ধ্যা ৬:৩৫
  • রাত ৭:৫৩
  • ভোর ৫:৩৩